লঞ্চের ভাড়া বাড়ল ৩৫ শতাংশ, ধর্মঘট প্রত্যাহার


• লঞ্চভাড়া ১০০ কিলোমিটার পর্যন্ত ১ টাকা ৭০ পয়সার পরিবর্তে ২ টাকা ৩০ পয়সা 
• ১০০ কিলোমিটারের ঊর্ধ্বে ১ টাকা ৪০ পয়সা থেকে বাড়িয়ে ২ টাকা নির্ধারণ 
• জনপ্রতি সর্বনিম্ন ভাড়া ১৮ টাকা থেকে বাড়িয়ে ৩০ টাকা করা হয়েছে

লঞ্চের ভাড়া ৩৫ দশমিক ২৯ শতাংশ বাড়ানো হয়েছে। জনপ্রতি সর্বনিম্ন ভাড়া ৩০ টাকা নির্ধারণ করেছে বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌপরিবহন কর্তৃপক্ষ (বিআইডব্লিউটিএ)। এর আগে সর্বনিম্ন ভাড়া ছিল ১৮ টাকা।  

রোববার (৭ নভেম্বর) রাজধানীর মতিঝিলে বিআইডব্লিউটিএর কার্যালয়ের সম্মেলন কক্ষে লঞ্চ মালিকদের সঙ্গে বৈঠক শেষে এই ঘোষণা দেন বিআইডব্লিউটিএর চেয়ারম্যান কমোডর গোলাম সাদেক। টানা ৩ ঘণ্টা ৪০ মিনিট বৈঠকের পর এই সিদ্ধান্ত নেয় লঞ্চ মালিক সমিতি ও বিআইডব্লিটিএ। 

এ সিদ্ধান্তের পর প্রত্যাহার করা হয়েছে চলমান লঞ্চ ধর্মঘট। ফলে আজ থেকেই লঞ্চ চলবে। 

বৈঠক শেষে গোলাম সাদেক জানান, লঞ্চভাড়া ১০০ কিলোমিটার পর্যন্ত ১ টাকা ৭০ পয়সার পরিবর্তে ২ টাকা ৩০ পয়সা ও ১০০ কিলোমিটারের ঊর্ধ্বে ১ টাকা ৪০ পয়সা থেকে বাড়িয়ে ২ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে। জনপ্রতি সর্বনিম্ন ভাড়া ১৮ টাকা থেকে বাড়িয়ে ৩০ টাকা করা হয়েছে। 

ভাড়া বৃদ্ধির পর লঞ্চ মালিক সমিতির সভাপতি মাহবুব উদ্দিন আহমেদ বলেন, বিআইডব্লিউটিএ চেয়ারম্যান ব্যক্তিগত উদ্যোগে সর্বমহলে কথা বলেছেন এবং সিদ্ধান্ত দিয়েছেন। আমরা সকলে মিলে সিদ্ধান্ত মেনে নিয়েছি। ইতোমধ্যে আপনারা সেটি জানেন। এই সিদ্ধান্ত সব মালিকদের সাথে আলোচনা করেই নেওয়া হয়েছে। আমি তাদের অনুরোধ করব এই মুহূর্ত থেকেই বর্তমান ভাড়া বিবেচনা করে যেন জাহাজ চলাচল শুরু করা হয়। 

সবশেষ ২০১৩ সালে যাত্রীবাহী নৌযানের ভাড়া পুনঃনির্ধারণ করা হয়েছিল। ওই সময় ১০০ কিলোমিটার দূরত্বের জন্য জনপ্রতি ভাড়া প্রতি কিলোমিটারে ১ টাকা ৭০ পয়সা, ১০০ কিলোমিটারের অধিক দূরত্বের জন্য ১ টাকা ৪০ পয়সা এবং জনপ্রতি সর্বনিম্ন ভাড়া ১৮ টাকা নির্ধারিত হয়।

সরকার গত ৪ নভেম্বর জ্বালানি তেলের মূল্য বৃদ্ধির পরিপ্রেক্ষিতে নৌযানের পরিচালন ব্যয় বৃদ্ধি পাওয়ায় নৌযান মালিক সমিতির পক্ষ থেকে ৬ নভেম্বর রাতের মধ্যে ভাড়া বৃদ্ধির দাবি জানানো হয়। অন্যথায় নৌযান পরিচালনা বন্ধ করে দেওয়ার আল্টিমেটাম দেওয়া হয়।

উল্লেখ্য, জ্বালানি তেলের দাম বাড়ায় ভাড়া বৃদ্ধির দাবিতে শনিবার সকাল থেকে লঞ্চ চলাচল বন্ধ রেখেছেন মালিকরা। এদিন সকাল থেকে ধর্মঘটের বিষয়ে আনুষ্ঠানিক ঘোষণা না দিলেও মালিকরা টার্মিনাল থেকে লঞ্চ অন্যত্র সরিয়ে নেন।

গত বুধবার রাতে ডিজেল ও কেরোসিনের দাম লিটারে ৬৫ টাকা থেকে বাড়িয়ে ৮০ টাকা করে সরকার। এর প্রতিবাদে লঞ্চমালিকরা ভাড়া দ্বিগুণ করার দাবি তোলেন। 

ডিজেলচালিত বাসের ভাড়া বাড়ছে সোমবার থেকে

এদিকে ডিজেলচালিত বাসের ভাড়া সোমবার (৮ নভেম্বর) থেকে বাড়ছে। দূরপাল্লায় প্রতি কিলোমিটারে তা হবে এক টাকা ৮০ পয়সা। আর ঢাকা ও চট্টগ্রাম মহানগরীতে প্রতি কিলোমিটারে বেড়ে হচ্ছে দুই টাকা ১৫ পয়সা। 

দূরপাল্লার বাস ভাড়া ২৭ শতাংশ বাড়ছে

ডিজেলচালিত বাস ও মিনিবাসের ভাড়া বাড়িয়ে প্রজ্ঞাপন জারি করেছে সরকার। রোববার (৭ নভেম্বর) সন্ধ্যায় সড়ক পরিবহন ও মহাসড়ক বিভাগ থেকে এ প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়।

প্রজ্ঞাপনে দূরপাল্লার বাস ভাড়া কিলোমিটারে ১ টাকা ৪২ পয়সা থেকে বাড়িয়ে ১ টাকা ৮০ পয়সা করা হয়েছে। ঢাকা ও চট্টগ্রাম মহানগরীতে বাস ভাড়া কিলোমিটারে ১ টাকা ৭০ পয়সা থেকে করা হচ্ছে ২ টাকা ১৫ পয়সা। মিনিবাসের ক্ষেত্রে তা ১ টাকা ৬০ পয়সা করা হচ্ছে ২ টাকা ৫ পয়সা। 

সিএনজিচালিত বাস ও মিনিবাসের ভাড়া বাড়ছে না

পরিবহন মালিকদের দাবির পরিপ্রেক্ষিতে ডিজেলচালিত বাসের ভাড়া বাড়ানো হলেও এর আওতায় আসবে না সিএনজিচালিত বাস ও মিনিবাস। এসব পরিবহনের ভাড়া বাড়ানো হবে না বলে জানিয়েছেন বিআরটিএ চেয়ারম্যান নূর মোহাম্মদ মজুমদার।

তেলের দাম না কমলে ট্রাক চলবে না

জ্বালানি তেলের দাম না কমলে ট্রাক চলবে না বলে জানিয়েছে বাংলাদেশ ট্রাক-কাভার্ড ভ্যান পণ্য পরিবহন মালিক-শ্রমিক ঐক্য পরিষদ। পরিষদের আহ্বায়ক রুস্তম আলী খান গণমাধ্যমকে জানান, জ্বালানি তেলের দাম না কমা পর্যন্ত তারা এ ধর্মঘট অব্যাহত রাখবেন। বিআরটিএ সদর দফতরে ভাড়া পুনর্নির্ধারণের বৈঠক হয়েছে। সেই বৈঠকে তারা অংশ নেননি। এছাড়া সরকারের পক্ষ থেকে তাদের সঙ্গে কোনো যোগাযোগ করা হয়নি।

এমএইচএন/এইচকে/জেএস 



Source link

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *