শাহজালালে ৪ কেজি স্বর্ণের পেস্টসহ ২ যাত্রী আটক


হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে প্রায় ৩ কোটি টাকা মূল্যের চার কেজি স্বর্ণের পেস্টসহ দুই যাত্রীকে আটক করেছে শুল্ক গোয়েন্দা ও তদন্ত অধিদফতর। আটক যাত্রীরা হলেন- দেলোয়ার ও রবি মিয়া। দুবাই-সিলেট-ঢাকাগামী বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স থেকে স্বর্ণসহ তাদেরকে আটক করা হয়।

শুক্রবার (৫ নভেম্বর) শুল্ক গোয়েন্দা ও তদন্ত অধিদফতরের উপ-পরিচালক শেখ মো. মাসুদুর রহমান বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, দুবাই-সিলেট-ঢাকাগামী বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের ফ্লাইট নং-বিজি-০২৪৮ এর মাধ্যমে স্বর্ণ চোরাচালান হতে পারে এমন তথ্যের প্রেক্ষিতে বিমানবন্দরের বিভিন্ন পয়েন্টে কাস্টমস গোয়েন্দা ও তদন্ত অধিদফতরের কর্মকর্তা ও কর্মচারীরা সতর্কতামূলক অবস্থান নেন। পরে দুবাই থেকে সিলেট হয়ে ঢাকায় আসা বিমান বাংলাদেশের ওই এয়ারলাইন্সে অভিযান চালিয়ে বেলা ১১টার দিকে দেলোয়ার ও রবি মিয়া নামে দুই যাত্রীকে শনাক্ত করা হয়।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তারা স্বর্ণ বহনের বিষয়টি অস্বীকার করে। পরে তাদের লাগেজ স্ক্যানিংসহ তাদের আর্চওয়েতে চেকিং করানো হলে দেলোয়ারের লাগেজে এক হাজার ১০০ গ্রাম ও পায়ুপথে ৮৩৫ গ্রামসহ মোট ১ হাজার ৯৩৫ গ্রাম পেস্ট সদৃশ স্বর্ণ পাওয়া যায়।

আরেক যাত্রী রবি মিয়ার পায়ের নিম্নাংশে এ্যাংলেট দিয়ে আবৃত ২ হাজার ২২০ গ্রাম পেস্ট সদৃশ স্বর্ণ পাওয়া যায়। দুই যাত্রীর কাছ থেকে মোট চার কেজি ১৫৫ গ্রাম পেস্ট সদৃশ স্বর্ণ পাওয়া যায়। যার আনুমানিক বাজারমূল্য প্রায় ২ কোটি ৯০ হাজার ৮৫ হাজার টাকা।

শেখ মো. মাসুদুর রহমান আরও বলেন, বিমানটি দুবাই থেকে সিলেটে অবতরণের পর অভ্যন্তরীণ যাত্রী হিসাবে বিমানে উঠেছিলেন তারা। অভ্যন্তরীণ যাত্রী হিসেবে স্বর্ণ অবৈধভাবে সরকার নির্ধারিত শুল্ককর ফাঁকি দিয়ে চোরাচালানের উদ্দেশ্যে দেশে আনা হয়েছে। এ বিষয়ে কাস্টমস আইন অনুযায়ী বিভাগীয় মামলা ও একটি ফৌজদারি মামলা দায়েরের কার্যক্রম প্রক্রিয়াধীন।

টিটি/এমআরএম/এএসএম



Source link

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *